উখিয়া নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪/০৯/২০২২ ২:৫০ পিএম

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন নিশ্চিতে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ। রোহিঙ্গারা বাংলাদেশের জন্য বড় একটি বোঝা। এ সমস্যা সমাধানে ভারত বড় ভূমিকা পালন করতে পারে বলে মনে করেন তিনি।

বাংলাদেশে লাখো রোহিঙ্গার উপস্থিতি তার সরকারের জন্য চ্যালেঞ্জ তৈরি করেছে বলে উল্লেখ করেন শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, বাংলাদেশে ১১ লাখ রোহিঙ্গা আছে। বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় ও প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গে আলোচনা করছে, রোহিঙ্গারা যাতে নিজ দেশে ফিরে যেতে পারে, সে জন্য ভারতেরও কিছু পদক্ষেপ নেওয়া উচিত।

ভারত সফরের প্রাক্কালে দেশটির বার্তা সংস্থা এএনআইয়ের সঙ্গে আলাপচারিতায় এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমার সরকার মানবিক দিক বিবেচনায় বাস্তুচ্যুত সম্প্রদায়টির দেখভালের চেষ্টা করে আসছে।

তিনি বলেন, এই রোহিঙ্গা… মানবিক কারণে আমরা তাদের আশ্রয় দিই। তাদের সবকিছু দিচ্ছি। এই করোনাকালে আমরা সব রোহিঙ্গাকে টিকা দিয়েছি। কিন্তু তারা আর কত দিন এখানে থাকবে?

প্রধানমন্ত্রী বলেন, রোহিঙ্গা শিবির এলাকায় পরিবেশগত ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। সেখানে কেউ মাদক কারবারি, কেউ সশস্ত্র সংঘাত, কেউ নারী পাচারে জড়িয়ে পড়েছে। দিন দিন তা বেড়েই চলেছে। তাই তারা যত তাড়াতাড়ি দেশে ফিরবে, তা বাংলাদেশের জন্য মঙ্গল, মিয়ানমারের জন্যও মঙ্গল। তাই আমরা তাদের বোঝানোর যথাসাধ্য চেষ্টা করছি। আমরা তাদের সঙ্গে, আসিয়ান-ইউএনসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সঙ্গে আলোচনা করছি। বিভিন্ন দেশের সঙ্গে আলোচনা করছি।

শেখ হাসিনা বলেন, রোহিঙ্গারা যখন অনেক সমস্যার মুখোমুখি হয়েছিল, তখন তাদের আশ্রয় দিয়েছিল বাংলাদেশ। কিন্তু এখন তাদের দেশে ফিরে যাওয়া উচিত।

পাঠকের মতামত

ঘটনাপ্রবাহঃ মিয়ানমার

সেন্টমার্টিন নিয়ে গুজবে কান না দেওয়ার অনুরোধ আইএসপিআরের

মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলমান সংঘর্ষকে কেন্দ্র করে সোশ্যাল মিডিয়ায় সেন্টমার্টিনের নিরাপত্তা নিয়ে বিভিন্ন স্বার্থান্বেষী মহলের গুজবে ...

উস্কানি দিয়ে কি মিয়ানমারের সঙ্গে যুদ্ধ বাধাব, ফখরুলকে প্রশ্ন কাদেরের

উস্কানি দিয়ে মিয়ানমারের সঙ্গে যুদ্ধ বাধাব কি-না বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে উদ্দেশ্য করে ...