ডেস্ক নিউজ
প্রকাশিত: ১৬/০৬/২০২৪ ৬:৪৪ পিএম

কক্সবাজারের উখিয়ায় ‘আধিপত্য বিস্তারকে’ কেন্দ্র করে এক রোহিঙ্গাকে ক্যাম্প থেকে তুলে নিয়ে গুলি করে হত্যার পর লাশ ধানক্ষেতে ফেলে রেখে গেছে আরসা সন্ত্রাসীরা।

উখিয়া থানার ওসি মো. শামীম হোসেন জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে উখিয়া উপজেলার ১৫ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের এইচ-১৪ ব্লকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মো. খাইরুল আমিন উখিয়ার ১৫ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের এইচ-১৪ ব্লকের বাসিন্দা জমির হোসেনের ছেলে।

স্থানীয়দের বরাতে শামীম হোসেন বলেন, শুক্রবার রাতে ক্যাম্পে নিজের বসত ঘরের সামনে থেকে সন্ত্রাসী সংগঠন আরসার কমান্ডার মো. সলিমের নেতৃত্বে একদল দুর্বৃত্ত খাইরুল আমিনকে অস্ত্রের মুখে তুলে নিয়ে যায়। পরে ক্যাম্প সংলগ্ন মোছারখোলা বাঙ্গালি পাড়ায় নিয়ে তাকে লক্ষ কয়েকটি গুলি করে। এরপর লাশ ধানক্ষেতে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়।

স্থানীয় লোকজন ধানক্ষেতে একটি মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ মৃতদেহটি উদ্ধার করেছে।

ওসি বলেন, কিছুদিন আগেও খাইরুল আমিন সন্ত্রাসী সংগঠন আরসার সদস্য ছিলেন। সম্প্রতি তিনি রোহিঙ্গাদের আরেকটি সংগঠন আরএসওতে যোগ দিয়েছেন। প্রাথমিকভাবে পুলিশ ধারণা করছে, ক্যাম্পে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ খুনের ঘটনা ঘটেছে।

নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানান শামীম হোসেন।

পাঠকের মতামত

মিয়ানমারের আরেক গুরুত্বপূর্ণ শহর বিদ্রোহীদের দখলে

মিয়ানমারের বিদ্রোহীরা দেশটির আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ শহরের দখল নিয়েছে। মিয়ানমারের জান্তাবিরোধী সশস্ত্র রাজনৈতিক গোষ্ঠী তা’আং ...

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার ও দূরপাল্লার ট্রেন পটিয়া স্টেশনে যাত্রা বিরতির দাবি

চট্টগ্রাম–কক্সবাজার ও দূরপাল্লার ট্রেন পটিয়া স্টেশনে যাত্রা বিরতিসহ বিভিন্ন দাবিতে রেলমন্ত্রী জিল্লুল হাকিমকে স্মারকলিপি দিয়েছেন ...