প্রকাশিত: ০৫/০৫/২০১৭ ৭:৫৮ এএম

সরওয়ার আলম শাহীন,উখিয়া নিউজ ডটকম::
আগামীকাল শনিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কক্সবাজার আসছেন,তার আগমনকে ঘিরে কক্সবাজারের সর্বত্র ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। কক্সবাজার সফরকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আকর্ষনীয় পর্যটন সড়ক মেরিন ড্রাইভ প্রকল্প সহ বেশ কয়েকটি প্রকল্পের উদ্ভোধনের কথা রয়েছে,এ সময় উখিয়া উপজেলার পর্যটন এলাকা ইনানীতে সুধী সমাবেশ সহ কক্সবাজারে বিশাল জনসভায় বক্তব্য রাখবেন তিনি। জনসভা সফল করতে শেষ মুহুর্তের প্রস্তুতিতে নির্ঘুম সময় কাটাচ্ছেন নেতাকর্মীরা। প্রধানমন্ত্রীর আগমনকে কেন্দ্র করে স্থানীয় নেতাকর্মীদের ব্যস্ততার পাশাপাশি সাধারণ জনমনেও ব্যাপক কৌতূহল ও আগ্রহ পরিলক্ষিত হচ্ছে। উৎসুক জনতার কৌতূহলী মন অপেক্ষা করছে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শুনার জন্য। কক্সবাজারের এই জনসভা নানা কারনে গুরুত্ব বহন করে। কারন একেতো সামনে জাতীয় সংসদ নির্বাচন, তার উপর দু,একটি আসনে প্রকাশ্যে গ্রুপিং চলছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগে। তাই সামনের নির্বাচনে কক্সবাজারের ৪ টি আসনে কারা পাচ্ছেন আওয়ামীলীগের মনোনয়ন এ নিয়ে চলছে ব্যাপক জল্পনাকল্পনা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জনসভায় এ বিষয়ে কোন কথা বলেন কিনা,সেটা নিয়েই আলোচনাটা একটু বেশী। ইতিমধ্যে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার আশায় প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষনের জন্য একাধিক আসনে কোমর বেধেই মাঠে নেমেছেন একাধিক সাম্ভাব্য প্রার্থী। যে যার যার মত করে চালিয়ে যাচ্ছেন প্রচার প্রচারণা। এর মধ্যে কক্সবাজার-সদর আসন,চকরিয়া-পেকুয়া আসন ও উখিয়া টেকনাফ আসনে একাধিক সাম্ভাব্য প্রার্থী কোমর বেধে মাঠে নেমেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষনের জন্য। এজন্য বিপুল পরিমাণ অর্থও খরচ করছেন নেতাকর্মীদের পেছনে। এদিকে সবকিছুকে ছাপিয়ে (কক্সবাজার-৪) উখিয়া-টেকনাফের আসনে এমপি প্রার্থী নিয়েই আলোচনাটা একটু বেশী। এ আসনে এমপি প্রার্থী হতে ইতিমধ্যেই অনেকে মাঠে নেমেছেন। প্রধানমন্ত্রীর কক্সবাজার সফরের মাস খানেক আগে থেকে উখিয়া টেকনাফ ভিক্তিক বেশ কয়েকজন আওয়ামীলীগ নেতা মাদক প্রতিরোধ কমিটির ব্যানারে কক্সবাজার,উখিয়া,টেকনাফ সহ বিভিন্ন স্থানে মানববন্ধন সহ সভা সমাবেশ করে যাচ্ছে। এসব জনআকর্ষন মুলক কর্মকান্ডের মাধ্যমে আলোচনায় থাকা সাম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে যাদের নাম আলোচিত হচ্ছে তাদের মধ্যে রয়েছে উখিয়া টেকনাফের সাবেক এমপি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী,কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের অর্থ সম্পাদক শাহ আলম চৌধুরী প্রকাশ রাজা শাহ আলম,উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী প্রমুখ। এদের সাথে আওয়ামীলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতারাও রয়েছেন। এ পক্ষের মতে বিভিন্ন কারনে বিতর্কিত হওয়া বর্তমান এমপি আবদুর রহমান বদি আগামীতে উখিয়া টেকনাফে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন পাবেননা এটা তারা নিশ্চিত। তারা এটাও বলছেন কক্সবাজারের জনসভা থেকেই দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা উখিয়া টেকনাফের প্রার্থীর ব্যাপারে একটি সংকেত দেবেন,যদিও সেটি নির্ভর করে দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার একান্ত ইচ্ছা-অনিচ্ছার উপর। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকসহ বিভিন্ন স্থানে চলছে দু,পক্ষের নেতাকর্মীদের বাহাস। একাধিক ব্যাক্তি উখিয়া টেকনাফে এমপি প্রার্থী হওয়ার প্রতিযোগিতা শুরু করে দিলেই স্থানীয় সাধারণ জনগোষ্ঠীর মাঝে আব্দুর রহমান বদি জনপ্রিয়তা এখনো অটুট রয়েছে। কিছু নেতাকর্মীর এমপি বদির দুরত্ব তৈরি হলেও বেশীর ভাগ জনগন বিশ্বাস করে উখিয়া- টেকনাফে এমপি বদি ব্যাপকভাবে উন্নয়ন করেছেন,তাই আওয়ামীলীগে এমপি বদির বিকল্প পাওয়া কঠিন হবে। এসব জল্পনাকল্পনা মাত্র। তাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কক্সবাজার আগমনের প্রধান গুরুত্বপূর্ন ইস্যু হয়ে দাড়িয়েছে কক্সবাজারের ৪ টি সংসদীয় আসনে আগামী নির্বাচনে কে হচ্ছেন নৌকার কান্ডারী। বিশেষ করে উখিয়া-টেকনাফ আসনে আবারো কি আব্দুর রহমান বদি আওয়ামীলীগের মনোনয়ন পাচ্ছেন, নাকি এ আসনে আসছে কোন নতুন মুখ।তার উত্তর পাওয়া যাবে হয়তো প্রধানমন্ত্রীর আগামীকালের জনসভা থেকেই।

পাঠকের মতামত

রামুর ফতেখাঁরকুলে উপ-নির্বাচনে প্রতীক পেয়ে প্রচারনায় ৩ চেয়ারম্যান প্রার্থী

রামু উপজেলার ফতেখাঁরকুল ইউনিয়ন পরিষদের উপ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্ধি ৩ প্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্ধ দেয়া ...

টেকনাফের পৌর কাউন্সিলর মনিরুজ্জামানের সম্পদ জব্দ দুদকের মামলা

টেকনাফ পৌরসভার কাউন্সিলর মো. মনিরুজ্জামানের সম্পদ জব্দ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। কক্সবাজার জ্যেষ্ঠ স্পেশাল ...