প্রকাশিত: ২৫/১১/২০১৬ ৭:৪৬ এএম

komডেস্ক রিপোর্ট :
আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিশ্চিত হওয়ার পর জেলা পরিষদের ২০টি সদস্য পদের ১৯ টি আসনের একক প্রার্থীরা নির্বাচনীয় প্রচারণায় নেমে পড়েছেন।
গত ২৩ নভেম্বর কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগ ১৯টি আসনে একক প্রার্থীর নাম দলের কেন্দ্রিয় মনোনয়ন বোর্ডের কাছে প্রেরণ করলেও সংরক্ষিত মহিলা আসন-৪ এ দলীয় প্রার্থী মনোনয়নে ঐক্যমত না হওয়ায় মনোনয়ন প্রত্যাশী ৪ জনের নামই কেন্দ্রে প্রেরণ করেছে।
দলের একক প্রার্থীরা হলেন সংরক্ষিত মহিলা আসন-১ মাসরাফা জান্নাত, আসন-২ সৈয়দা নিগাত আমিন, আসন-৩ এ ফিরোজা আমজদ। ও আসন-৫ আশরাফ জাহান কাজল।
আসন-৪ এ একক প্রার্থী মনোনয়নে ঐক্যমত না হওয়ায় আবেদকারী ৪ জন আওয়ামী লীগ নেত্রী আয়েশা সিরাজ, হামিদা তাহের, তাহমিনা হক চৌধুরী লুনা ও শাহানা আকতার পাখির নাম কেন্দ্রীয় মনোনয়ন বোর্ডের প্রেরণ করেছে জেলা আওয়ামী লীগ। কেন্দ্রিয় মনোনয়ন বোর্ডই এ আসনের একক প্রার্থী চুড়ান্ত করবেন বলে নিশ্চিত করেছেন জেলা আওয়ামী লীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক আবু তাহের আজাদ।
সাধারণ আসনে একক প্রার্থী মনোনীত হয়েছেন আসন-১  মিজানুর রহমান টিটু , আসন-২   রুহুল আমিন বিএবিএড, আসন-৩   আনোয়ার পাশা চৌধুরী, আসন-৪ আবু হেনা মোস্তফা কামাল,  আসন-৫  কমর উদ্দিন চৌধুরী, আসন- ৬  আবু তৈয়ব, আসন-৭  মোহাম্মদ ওয়ালিদ মিল্টন, আসন-৮  মোক্তার আহমদ, আসন-৯ মনজুর আলম , আসন-১০  উজ্জ্বল কর,  আসন-১১ এ অলক বড়ুয়া আপ্পু, আসন-১২ শামসুল ্আলম,  আসন-১৩  নুরুল হক, আসন-১৪ হুমায়ুন কবির চৌধুরী,  আসন-১৫ শফিক মিয়া ।
কক্সবাজার পৌর ও আংশিক সদর আসন-১০ থেকে মনোনীত একক প্রার্থী পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক উজ্জ্বল কর বলেন, মনোনয়ন দিয়ে দল আমাকে সম্মানিত করেছেন। জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নকে তরান্বিত করতে সুযোগ দিয়েছেন, তাই জেলা, পৌর ও সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের কাছে কৃতজ্ঞতা জানাই।
আসন-২ থেকে মনোনীত মাষ্টার রুহুল আমিন জানিয়েছেন, মহেশখালীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার চলমান উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতেই প্রার্থী হয়েছি। তিনি জেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বলেন, নিবার্চিত হলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরিকল্পনা বাস্তবায়নে কাজ করতে চাই।
জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডঃ সিরাজুল মোস্তফা ও  সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান চেয়ারম্যান জানিয়েছেন, যারা মনোনয়ন চেয়েছেন তারা সবাই যোগ্য প্রার্থী। মনোনয়ন না পেলে মনক্ষুন্ন হওয়ার কোন কারণ নেই। সবাইকে পর্যায়ক্রমে মূল্যায়ন করা হবে। নেতৃবৃন্দ সবাইকে দলের মনোনীত প্রার্থীদের পক্ষে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহবান জানান।

পাঠকের মতামত