প্রকাশিত: ১০/০৫/২০১৭ ১০:০১ পিএম

চকরিয়া প্রতিনিধি::
কক্সবাজারের চকরিয়ায় যাত্রীবাহি সৌদিয়া পরিবহণের বাসের চাপায় দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত ও ধাক্কায় ব্রীজের রেলিংয়ে বসা চার যুবক আহত হয়েছে।

আজ বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের হারবাং লালব্রীজ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। বাসের চালক-হেলপার পালিয়ে গেলেও বাস ও মোটরসাইকেলটি জব্দ করেছে পুলিশ।

নিহত দুই মোটরসাইকেল আরোহী হলেন- চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার বড়হাতিয়া ইউনিয়নের আব্দুল আলিমের ছেলে কুতুব উদ্দিন (৩০) ও একই এলাকার মোহাম্মদ ইছহাকের ছেলে আবদুর রহিম (২৬)।

আহত চার যুবক হলেন- চকরিয়া উপজেলার হারবাং পূর্ব বৃন্দাবন এলাকার মোরশেদ আলীর ছেলে মো.রাসেল (১৭একই এলাকার গফুর আলমের ছেলে বেলাল উদ্দিন(১৬), পশ্চিম বৃন্দাবনের ডাক্তার সুভাষ চন্দ্র নাথের ছেলে রুবেল নাথ (১৮) ও লোহাগাড়া বড়হাতিয়া এলাকার মো.ইসমাইলের ছেলে আনোয়ার হোসেন (২০)। আহতদের প্রথমে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও পরে চট্ট্রগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চিরিংগা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির আইসি আবুল হাশেম মজুমদার বলেন, লোহাগাড়া থেকে মোটরসাইকেল করে কক্সবাজার যাচ্ছিলেন দুই বন্ধু কুতুব ও রহিম। তারা হারবাং লাল ব্রীজ এলাকায় পৌছলে কক্সবাজার থেকে চট্টগ্রাম মুখি যাত্রীবাহি সৌদিয়া পরিবহণের একটি বাস মোটর সাইকেলকে চাপা দিয়ে ব্রীজের রেলিংয়ে ধাক্কা দেয়।

এসময় ঘটনাস্থলে প্রাণ হারায় দুই মোটরসাইকেল আরোহী। তীব্র গরমে উন্মক্ত বাতাস নিতে ব্রীজের রেলিংয়ে বসা চার যুবক বাসের ধাক্কায় গুরুতর আহত হয়। সৌদিয়া বাস (চট্ট্রমেট্টো ব- ১১-০১০৩) ও মোটরসাইকেল চট্টমেট্টো (ল-১২-১৬২১) জব্দ করা হয়েছে।

পাঠকের মতামত

মিয়ানমারের আরেক গুরুত্বপূর্ণ শহর বিদ্রোহীদের দখলে

মিয়ানমারের বিদ্রোহীরা দেশটির আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ শহরের দখল নিয়েছে। মিয়ানমারের জান্তাবিরোধী সশস্ত্র রাজনৈতিক গোষ্ঠী তা’আং ...

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার ও দূরপাল্লার ট্রেন পটিয়া স্টেশনে যাত্রা বিরতির দাবি

চট্টগ্রাম–কক্সবাজার ও দূরপাল্লার ট্রেন পটিয়া স্টেশনে যাত্রা বিরতিসহ বিভিন্ন দাবিতে রেলমন্ত্রী জিল্লুল হাকিমকে স্মারকলিপি দিয়েছেন ...