প্রকাশিত: ১৫/০৫/২০১৬ ১১:০১ পিএম

Pic Ukhiya 15-05-2016~1ফারুক আহমদ, উখিয়া ::
মোহাম্মদ মাইমুন (২২) নামক এক পরিবহন শ্রমিক অর্থের অভাবে চিকিৎসা না দিয়ে পঙ্গুত্ব হয়ে যাচ্ছে তার জীবন। কক্সবাজার সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এ অসহায় যুবক সাহায্যের জন্য হাত বাড়িয়েছেন ধর্নাঢ্য ব্যক্তি ও এলাকার বৃত্তশালীদের প্রতি।

জানা যায়, উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের রুমখাঁ মাতব্বর পাড়া গ্রামের হাজী আব্দুল ছালাম সওদাগরের ছেলে মোহাম্মদ মাইমুন একজন পরিবহন শ্রমিক। তিনি ঢাকায় ডাম্পার চালাতেন। গত ১ মাস পূর্বে এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় মারাত্বক আহত হয়। পিতা হাজী আব্দুল ছালাম জানান, ঢাকার মিরপুরের আল-মদিনা হাসপাতালে ভর্তি হয়ে  কয়েকদিন চিকিৎসা করানোর পর অর্থের অভাবে গ্রামের বাড়ীতে চলে আসি। তার শরীর ও পায়ে মারাত্বক আঘাত প্রাপ্ত হয়। বর্তমানে তিনি কক্সবাজার সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। পিতা আরো জানান, গরু ছাগল বিক্রি করে এবং বিভিন্ন জন থেকে ধার হাওলাত নিয়ে প্রায় ১ লক্ষ ৪০ হাজার টাকা ছেলের চিকিৎসার জন্য ব্যয় করেছি। এখন আমার হাতে আর কোন টাকা পয়সা নেই। টাকার অভাবে এক প্রকার ছেলের চিকিৎসা বন্ধ রয়েছে। আমার ছেলেকে বাচানোর জন্য সকলের আর্থিক সাহায্য প্রয়োজন। ডাক্তার জানিয়েছেন পর্যাপ্ত চিকিৎসা করতে না পারলে মারাত্বক আহত যুবক মাইমুন চিরজীবনের জন্য পঙ্গ হয়ে যাবে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন পরিবহন শ্রমিক মাইমুনের চিকিৎসার সাহায্যার্থে ধর্নাঢ্য ও দানশীল ব্যক্তিদের নিকট আকুল আবেদন জানিয়েছেন তার পরিবার। সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা সঞ্চয়ী হিসাব নং- ৩০৫১। ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড উখিয়ার কোটবাজার শাখা।

পাঠকের মতামত

সেন্টমার্টিন নিয়ে গুজবে কান না দেওয়ার অনুরোধ আইএসপিআরের

মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলমান সংঘর্ষকে কেন্দ্র করে সোশ্যাল মিডিয়ায় সেন্টমার্টিনের নিরাপত্তা নিয়ে বিভিন্ন স্বার্থান্বেষী মহলের গুজবে ...

ঈদের ছুটিতে পর্যটক বরণে প্রস্তুত কক্সবাজার কক্সবাজার প্রতিবেদক

পবিত্র ঈদুল আজহার টানা ছুটিতে ভ্রমণপিপাসুদের বরণে পুরোপুরি প্রস্তুত হয়েছে সমুদ্র শহর কক্সবাজার। আগত পর্যটকের ...

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বড় চ্যালেঞ্জ জন্মনিয়ন্ত্রণ

কক্সবাজারে রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবিরগুলোতে বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দেখা দিয়েছে জন্মনিয়ন্ত্রণ। সরকারি-বেসরকারি নানা উদ্যোগের পরও ক্যাম্পগুলোয় জন্মহার ...