প্রকাশিত: ৩১/১০/২০১৬ ৯:১৮ পিএম , আপডেট: ৩১/১০/২০১৬ ৯:২০ পিএম

ফারুক আহমদ, উখিয়া::

উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের রুমখাঁ নতুন পাড়া গ্রামের মোহাম্মদ হাছন ও তার ভাই এবং ছেলেদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করে হয়রানী করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। দীর্ঘ ৪৩ বছরের ভোগদখলীয় ও চাষাবাদকৃত জমি করে কৌশলে জবর দখল করার জন্য অরুন বড়–য়া নামক জৈনক ব্যক্তি একের পর এক মামলা দিয়ে মোহাম্মদ হাছন পরিবারকে নি:চিহৃ করার অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। ভোক্তভোগি পরিবারের সদস্যরা হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা থেকে রেহায় দেওয়ার জন্য পুলিশ সুপার ও উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

অভিযোগে প্রকাশ, গত ২৮ অক্টোবর ধান দেখতে যাওয়ার ঘটনা সাজিয়ে অরুন বড়–য়া সহ বেশ কয়েকজন লোক আহত হয়েছে মর্মে কক্সবাজার জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেড আদালতে মামলা করে। যার নং- ৩২০,তারিখ- ৩১/১০/২০১৬ইং। এতে আসামী করা হয় মৃত মোহাম্মদ সোলতানের পুত্র মোহাম্মদ হাছন, মোহাম্মদ আলম, ছৈয়দ আলম, মোহাম্মদ হাছনের পুত্র আইয়াছ কে।

মোহাম্মদ হাছন অভিযোগ করে বলেন, ১৯৭৩ সাল, ৭৪ সাল, ৭৫ সাল ও ৭৬ সালে রসিক চন্দ্র বড়–য়ার ছেলে হেমন্দ্র লাল বড়–য়া, গনেশ চন্দ্র বড়–য়ার ছেলে যতিন্দ্র লাল বড়–য়া ও রুপচন্দ্র বড়–য়ার স্ত্রী রেনু বালা বড়–য়া হতে পৃথক ৪টি দলিল সম্পাদনের মাধ্যমে রুমখাঁ মৌজা হতে ৩ একর জমি (মোহাম্মদ হাছন) সহ মা ও অপরাপর ভাই বোনের নামে ক্রয় করা হয়। উক্ত ক্রয়কৃত জমি দীর্ঘ ৪৩ বছর ধরে চাষাবাদ করে শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোগদখল করে আসতেছি। আমাদের নামে উখিয়া ভূমি অফিসে ৮১৪ ও ১১৫০ নং বি.এস খতিয়ান সৃজিত হয়।

গুরুতর অভিযোগ উঠেছে, রাজাপালং জাদি মোড়া বৌদ্ধ বিহারের জায়গা জবর দখল ও মারধরের ঘটনা সাজিয়ে অরুন বড়–য়া বাদী হয়ে আমাদের বিরুদ্ধে আদালতে যে মামলা দায়ের করা হয়েছে তা হয়রানীমূলক। মামলায় যাদেরকে আসামী করা হয়েছে তৎমধ্যে আইয়াছ দীর্ঘ ১০ বছর ধরে ফেনীতে একটি কোম্পানীতে চাকুরীরত এবং ছৈয়দ আলম ভোলায় কর্মজীবি হিসাবে কর্মরত রয়েছে। উল্লেখিত ঘটনার দিন অর্থাৎ গত ২৮ অক্টোবর এ দুই জন এলাকায় ছিল না।

অভিযোগে প্রকাশ, আদালতের আদেশ অমান্য করে গত ২৮ অক্টোবর আমাদের জমিতে রোপিত চাষাবাদকৃত ধান কেটে নেওয়ার জন্য অরুন বড়–য়া নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী ও লাঠিয়াল বাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থলে এসে মহড়া দেয়। আমরা বাঁধা দেওয়ার চেষ্টা করলে উল্টো আমাদের উপর আক্রমণের চেষ্টা চালায়। এ ঘটনাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে আমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানীর অপচেষ্টা করা হচ্ছে। হয়রানীমূলক মামলা থেকে রেহায় দিয়ে স্বাভাবিক জীবনযাপনের সুযোগ দেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট আমাদের আকুল আবেদন রহিল।

পাঠকের মতামত

বেইলি রোডে আগুন স্ত্রী-সন্তানসহ সাজেক যাওয়া হল না রাজস্ব কর্মকর্তা উখিয়ার শাহজালালের

রাজধানীর বেইলি রোডের ‘কাচ্চি ভাই ভবনে’ লাগা আগুনে স্ত্রী ও সন্তানসহ প্রাণ হারিয়েছেন এনবিআরের কাস্টমস ...

বেইলি রোডের অগ্নিকান্ডে স্ত্রীসন্তানসহ প্রান হারালো উখিয়ার শাহজালাল

রাজধানীর বেইলি রোডের কাচ্চি ভাই রেষ্টুরেন্টের ভবনের অগ্নিকান্ডে দগ্ধ হয়ে কক্সবাজারের উখিয়ার হলদিয়া পালং ইউনিয়নের ...

কক্সবাজার বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক রূপান্তরের কাজ প্রায় শেষ

বঙ্গোপসাগরের মোহনায় রানওয়ে সম্প্রসারণসহ কক্সবাজার বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক মানে রূপান্তরের উন্নয়নকাজ প্রায় শতভাগ শেষ হয়েছে। চলতি ...