প্রকাশিত: ২২/১০/২০১৬ ৯:১২ পিএম , আপডেট: ২২/১০/২০১৬ ১০:০০ পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক::
ভবিষ্যৎ নাগরিকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় সরকারের বছরে দুই দফা বিনামূল্যে কৃমিনাশক ওষুধ খাওয়ানোর কার্যক্রমের অংশ হিসেবে সারাদেশে শনিবার জাতীয় কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ শুরু হলেও কক্সবাজারের উখিয়ায় এর কোন রকম কার্যক্রম চোখে পড়েনি বলে জানিয়েছেন অসংখ্য অভিভাবক। তারা জানান, উখিয়া হাসপাতালের কর্তারা সবসময়ই নিজের কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকেন। সরকারী কাজ করার সময় তাদের তেমন একটা হয়না। উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ করলেও কোন কাজ হয়না।

গবেষণার তথ্য অনুযায়ী, শিশুদের মধ্যে কৃমি আক্রান্তের হার সবচেয়ে বেশি। কৃমি নিয়ন্ত্রণ না করতে পারায় শিশুদের শারীরিক ও মানসকি বৃদ্ধি ব্যহত হয় এবং শিশু অপুষ্টিতে ভোগে। পাশাপাশি শিশুর শিক্ষা ক্ষমতা হ্রাস পায় ও শ্রেণী কক্ষে সক্রিয় থাকতে বাধার সৃষ্টি করে। কৃমি হলে মানুষের বদহজম, ডায়রিয়া ও শ্বাসকষ্ট দেখা দেয়।

উল্লেখ্য, বছরে দুইবার এপ্রিল ও অক্টোবর মাসে এই কার্যক্রমের আওতায় ৫ থেকে ১২ বছর বয়সী সকল শিশুকে কৃমি নাশক ওষুধ খাওয়ানো হয়।

এব্যাপারে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার আবদুল মাবুদের সাথে তার অফিসের ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি না থাকার কারণে বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

সরকারের এমন একটি কার্যক্রম উখিয়ায় শুরু না করায় অভিভাবকরা হতাশের পাশাপাশি অভিযুক্ত সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের শাস্তির দাবী জানিয়েছেন।

পাঠকের মতামত

উখিয়ায় সরকারি লোগো লাগানো গাড়ি থেকে ৭ লাখ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ৪

কক্সবাজার মেরিন ড্রাইভ হতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত আত্মসমর্পণকৃত ইয়াবাকারবারি আবদুল আমিন (৪০) কে তার ৩ ...