প্রকাশিত: ১৯/০৫/২০১৭ ৯:০৩ পিএম , আপডেট: ১৭/০৮/২০১৮ ৫:৫৭ পিএম

শরীয়তপুর: শরীয়তপুরের নড়িয়া থানার সাবেক এসআই ফিরোজের সাথে পরকিয়ায় লিপ্ত একই এলাকার ইতালী প্রবাসী সুমন কাজীর স্ত্রী রুমা আক্তার রুমি। তাদের রোমাঞ্চকর এ পরকিয়ায় বাধা দেয়ায় রুমার ঘরে ফিরোজের রেখে যাওয়া পুলিশের হ্যান্ডকাপ হাতে-পায়ে পড়িয়ে নিজের মেয়ে ঐশিকে (১৩) নির্যাতন ও হত্যার চেষ্টা করে রুমা। এ ঘটনায় ওই এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা যায়। ঐশি নড়িয়া বিহারী লাল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী। মায়ের এ অপকর্মের কথা বাবাকে ফোন করে জানানোর কথা বলায় মা (রুমার) অমানবিক নির্যাতনের শিকার হয়ে নড়িয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করে ঐশি। মেয়ের দায়ের করা মামলায় ইতোমধ্যে নড়িয়া থানা পুলিশ গ্রেফতারও করেছে মা রুমাকে।

শীর্ষ নিউজ

পাঠকের মতামত

চাকরি ছাড়লেন ৬ বিসিএস ক্যাডার

চাকরি ছেড়েছেন বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসের (বিসিএস) ক্যাডারে নিয়োগ পাওয়া ৬ কর্মকর্তা। এসব কর্মকর্তার বেশিরভাগই শিক্ষা ...

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু করতে ইতিবাচক মিয়ানমার

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরুর বিষয়ে ইতিবাচক সাড়া দিয়েছেন মিয়ানমারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী থান সুই। ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিতে বিমসটেক ...

সপ্তাহজুড়ে বৃষ্টির আভাস

আবহাওয়া অধিদপ্তর আগামী সপ্তাহজুড়ে সারাদেশে বৃষ্টি হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে। সেই সঙ্গে সপ্তাহজুড়ে বৃষ্টির ...