আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ২৫/০১/২০২৩ ৯:১২ এএম

মিয়ানমার সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে জার্মানির আদালতে মামলা করেছে মানবাধিকার গ্রুপ ও বেশ কয়েকজন মিয়ানমারের নাগরিক। মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) জার্মানির ফেডারেল পাবলিক প্রসিকিউটর জেনারেলের কাছে মামলাটি দায়ের করা হয়।

জার্মানভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ডয়েচেভেলে জানায়, মানবাধিকার গ্রুপ ফোর্টিফাই রাইটস এবং মিয়ানমারের ১৬ জন নাগরিক সামরিক জান্তার বিরুদ্ধে গণহত্যা, যুদ্ধাপরাধ ও মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগ দায়ের করেছে।

মামলায় ২০২১ সালে মিয়ানমারে গণতান্ত্রিক সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করে জান্তা বাহিনী ক্ষমতা দখল করে দমনপীড়নের অভিযোগ রয়েছে। এ ছাড়া মিয়ানমার সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে ২০১৭ সালে রোহিঙ্গা মুসলিমদের জাতিগত নির্মূলের বিষয়টিও মামলায় উঠে এসেছে।

ফোর্টিফাই রাইটসের জানায়, ২০১৩ সাল থেকে এক হাজারের বেশি নির্যাতিত মানুষের সাক্ষাৎকার এবং মিয়ানমার সেনাবাহিনীর ফাঁস হওয়া রেকর্ডের ভিত্তিতে ২১৫ পৃষ্ঠার অভিযোগপত্র তারা জমা দিয়েছেন।

ফোর্টিফাই রাইটসের বোর্ডের সদস্য নিকি ডায়মন্ড বলেন, মিয়ানমারে গণহত্যা, মানবতাবিরোধী অপরাধ এবং সামরিক বাহিনী ও তার নেতাদের মাধ্যমে সংঘটিত যুদ্ধাপরাধের বিচারের জন্য আমরা জার্মানির প্রতি আস্থা রাখি।

এদিকে জার্মানির ফেডারেল প্রসিকিউটরের কার্যালয় মামলাটির বিষয়ে মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। মামলাটি আদালতে যাওয়ার আগে প্রসিকিউটর অফিস অভিযোগ দায়েরের বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবে বলে জানা গেছে।

পাঠকের মতামত

স্টোকহোমে পবিত্র কুরআন পোড়ানোর ঘটনায় বাংলাদেশের তীব্র প্রতিবাদ

বাংলাদেশ সুইডেনের রাজধানী স্টোকহোমে তুরস্কের দূতাবাসের সামনে শনিবার এক কট্টর ডানপন্থী ব্যক্তির পবিত্র কুরআন পোড়ানোর ...