শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলোকে সরকারের নির্দেশনা

ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের শিখনফল মূল্যায়নে অ্যাসাইনমেন্ট গ্রহণের জন্য কোনো ফি আদায় করা যাবে না বলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলোকে নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। আর মাধ্যমিকের শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলো কীভাবে টিউশন ফি আদায় করবে, সে বিষয়ে শিগগিরই নির্দেশনা দেয়া হবে।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক রোববার বাংলাদেশ জার্নালকে এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের শিখনফল মূল্যায়ন করতে যে অ্যাসাইনেমন্ট নেয়া হচ্ছে সেজন্য শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে কোনো ফি নেয়া যাবে বলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলোতে বলে দেয়া হয়েছে। টিউশন ফি আদায় করা নিয়ে আমরা শিগগিরই একটি নির্দেশনা দেব।

দেশের বিভিন্ন জেলার একাধিক বিদ্যালয় থেকে শিক্ষার্থীরা বাংলাদেশ জার্নালকে অভিযোগ করেছেন বিদ্যালয় ভেদে অ্যাসাইনমেন্ট বাবদ ৩০০-৫০০ টাকা শিক্ষার্থীদের থেকে রেখে দেয়া হচ্ছে।

করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে এবার বার্ষিক পরীক্ষা না নিয়েই মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের ওপরের শ্রেণিতে তোলা হবে। ষষ্ঠ থেকে দশম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ঘাটতি পূরণের জন্য ৩০ কর্মদিবসে শেষ করা যায় এমন একটি সিলেবাস প্রণয়ন করেছে এনসিটিবি। সেই সিলেবাসের আলোকে শিক্ষার্থীদের প্রতি সপ্তাহে তিনটি করে অ্যাসাইনমেন্ট দেয়া হচ্ছে; যার উত্তর শিক্ষার্থীদের পাঠ্যপুস্তক অনুসরণ করে লিখতে বলা হয়েছে।

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন