রোহিঙ্গাদের দ্বিতীয় তালিকা নিতে রাজি হয়নি মিয়ানমার

নিউজ ডেস্ক: রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের লক্ষ্যে দ্বিতীয় দফায় আরও একটি তালিকা প্রস্তুত করেছে বাংলাদেশ। ঢাকায় যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক সামনে রেখে ১০ হাজার রোহিঙ্গার এই তালিকা তৈরি করা হয়। যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠকে তালিকার বিষয়ে মিয়ানমারের কাছে উত্থাপনও করা হয়। তবে মিয়ানমার সেই তালিকা নিতে রাজি হয়নি।

প্রথম তালিকা যাচাই-বাছাই শেষ করে দ্বিতীয় তালিকা নিতে চায় মিয়ানমার। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

ঢাকায় বৃহস্পতিবার (১৭ মে) যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। এই বৈঠকে বাংলাদেশ-মিয়ানমারের পররাষ্ট্র সচিব নেতৃত্ব দেন। যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক সামনে রেখে দ্বিতীয় দফার তালিকা প্রস্তুত করেছিলো বাংলাদেশ। খবর উখিয়া নিউজ ডটকমের।বৈঠকে তালিকার বিষয়টি উত্থাপন করার পর মিয়ানমারের পক্ষ থেকে বলা হয়, প্রথম দফা তালিকা এখনও যাচাই-বাছাই শেষ হয়নি। সে কারণে তারা আরও সময় নিতে চায়। প্রথম তালিকা শেষ করার পরে দ্বিতীয় দফায় তালিকা নিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে মিয়ানমার।

ad

যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপে দ্বিতীয় দফা তালিকা হস্তান্তরের বিষয়ে পররাষ্ট্র সচিব এম শহীদুল হক বলেন, মিয়ানমারকে তালিকা দেওয়া হবে। তালিকা তো আছেই। তবে আমরা বৈঠকে জোর দিয়েছি, দ্রুত প্রত্যাবাসন যেন করা যায়।

গত ১৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় বাংলাদেশ-মিয়ানমার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীদের বৈঠকে প্রথমবারের মতো ৮ হাজার ৩২ জন রোহিঙ্গা নাগরিকের তালিকা মিয়ানমারকে হস্তান্তর করা হয়। সেই তালিকা এখন যাচাই-বাছাই করছে মিয়ানমার। প্রথম তালিকা থেকে ইতোমধ্যেই মিয়ানমার এক হাজার রোহিঙ্গা নাগরিককে যাচাই করে বাংলাদেশকে ফিরতি তালিকা দিয়েছে।

রোহিঙ্গাদের তালিকা যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়া ধীরগতিতে এগিয়ে চলছে বলে মনে করছে বাংলাদেশ। মিয়ানমারকে এই তালিকা দ্রুত যাচাই-বাছাই করার জন্য অনুরোধও করা হয়েছে। তবে প্রথম তালিকা দেওয়ার তিন মাস পরেও তা যাচাই করতে পারেনি মিয়ানমার।