মামলা পরিচালনার এখতিয়ার আন্তর্জাতিক আদালতের নেই : মিয়ানমার

নিউজ ডেস্ক::
রাখাইন রাজ্যের সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে সংগঠিত অপরাধের ঘটনায় মিয়ানমারের বিরুদ্ধে মামলা পরিচালনার কোনো এখতিয়ার আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) নেই বলে জানিয়েছে দেশটি। গতকাল বৃহস্পতিবার মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর কার্যালয়ের মন্ত্রণালয় থেকে দেওয়া এক বিবৃতিতে এ কথা বলা হয়েছে।
বিবৃতিতে বলা হয়েছে, রোম সনদের ওপর ভিত্তি করে হেগের আইসিসি প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। গণহত্যা, মানবতাবিরোধী অপরাধ ও যুদ্ধাপরাধের জন্য ব্যক্তির বিচার করার এখতিয়ার রয়েছে আইসিসির। তবে মিয়ানমার রোম সনদের কোনো পক্ষ না। তাই নেপিদো’র বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নেওয়ার এখতিয়ার আইসিসি’র নেই। মামলা পরিচালনায় আইসিসির এখতিয়ার নিয়ে মিয়ানমারের মতামত জানতে চাইলে দেশটি এই অভিমত দিয়েছে।
এমন সময় মিয়ানমার এমন অভিমত জানালো যখন রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ার প্রস্তুতি ও রাখাইনের পরিস্থিতি দেখতে দেশটি সফরে গেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী। রোহিঙ্গা নির্যাতন বিষয়ে মামলা পরিচালনার জন্য আইসিসি বাংলাদেশের পর মিয়ানমারের মতামত জানার চেষ্টা করছে। বাংলাদেশ আইসিসির চাহিদা অনুযায়ী তিনটি বিষয়ে গোপনীয়ভাবে পর্যবেক্ষণ পাঠিয়েছে।
আইসিসির প্রি-ট্রায়াল চেম্বার মিয়ানমারের উপযুক্ত কর্তৃপক্ষকে ২৭ জুলাইয়ের মধ্যে প্রকাশ্যে বা গোপনীয়ভাবে তিনটি বিষয়ে পর্যবেক্ষণ জমা দিতে আহ্বান জানিয়েছিল। তবে মিয়ানমার আইসিসির সাথে কাজ করতে অস্বীকৃতি জানিয়ে বলেছে, আদালতের বিচার প্রক্রিয়ার ‘ন্যায্যতা এবং স্বচ্ছতার’ অভাব নিয়ে তাদের উদ্বেগ রয়েছে।