ad

প্রীতির সঙ্গে বাগদান হলো মিরাজের

খুলনা: বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজের বাগদান সম্পন্ন হয়েছে। পাত্রী খুলনার সরকারি বিএল কলেজের উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থী রাবেয়া আক্তার প্রীতি।

প্রীতির সঙ্গে মিরাজবৃহস্পতিবার (২১ মার্চ) দুপুরে মহানগরের খালিশপুরের কাশিপুর রাজধানী মোড় এলাকায় কনের বাড়িতে ঘরোয়া আয়োজনে এ বাগদান সম্পন্ন হয়। বহুদিনের প্রণয়ের পর পরিণয়ে জড়ালেন মিরাজ ও প্রীতি।

প্রীতির বাবা বেলাল হোসেন পেশায় একজন চাকরিজীবী। আর প্রীতি দুই ভাইয়ের ছোটবোন।

মেহেদী হাসান মিরাজ জানান, বিয়ের অনুষ্ঠান করবো আগামী বিশ্বকাপের পর। তখন জানানো হবে সবাইকে।

ইংল্যান্ডে আগামী মে মাসের শেষ দিকে শুরু হওয়া বিশ্বকাপের পর্দা নামবে জুলাইয়ের মাঝামাঝিতে।

মিরাজের বাবা জালাল উদ্দিন বাংলানিউজকে বলেন, ঘরোয়া পরিবেশে দুই পরিবারের উপস্থিতিতে এ বাগদান সম্পন্ন হয়েছে। তবে অনেক দিন ধরেই মিরাজের বিয়ের কথা হচ্ছিল। কিন্তু কবে হবে, সময় ঠিক করা যাচ্ছিল না। বিশ্বকাপের আগে পাওয়া লম্বা বিরতিটা কাজে লাগাতে চাইছে সবাই। তাই আজ কাশিপুরে মেঘনা অয়েল ডিপো সড়কে কনের বাড়িতে বাগদান সেরে ফেলেছি। বাইরের তেমন কাউকে বলিনি।বাগদানের সাজে মেহেদী হাসান মিরাজ। ছবি: বাংলানিউজ
অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়া মিরাজের বন্ধু বিপুল আইচ বাংলানিউজকে বলেন, আমরা ৯-১০ জন কনের বাড়িতে গিয়েছি। আজ বাগদান সম্পন্ন হয়েছে। বিশ্বকাপের পর বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা হবে।

অবশ্য মিডিয়াকর্মীরা অভিযোগ করেছেন, মিরাজ জাতীয় দলের তারকা হওয়ায় তার বাগদানের খবর শুনে সেখানে গেলেও মিডিয়াকর্মীদের এড়িয়ে চলা হয়েছে। এমনকি কাউকে কাউকে ছবি তুলতেও দেওয়া হয়নি।

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন