পরীমনি কারাগারে মেহেদী পেলেন কোথায়?

৫ আগস্ট রাজধানীর বনানীর বাসা থেকে গ্রেপ্তারের পর তিন দফা রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠানো হয় আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমনিকে।

সেখান থেকে আইনি প্রক্রিয়া শেষ করে জামিন পেয়ে বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) গাজীপুরের কাশিমপুরে অবস্থিত কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে মুক্তি পান তিনি।

মুক্ত পরীমনি একটি সাদা হ্যেরিয়ার গাড়িতে সাদা সালোয়ার কামিজ পড়ে উপস্থিত ভক্ত ও উৎসুক জনতার উদ্দেশ্যে হাত নাড়াতে থাকেন। এসময় তার চোখে ছিল কালো সানগ্লাস।

হাত নাড়ানোর সময়ই দেখা যায় পরীমনির হাতে মেহেদী দেয়া। মেহেদী দিয়ে তার হাতে লেখা ‘Dont hurt me bitch’, যার অর্থ দাঁড়ায় ‘আমাকে আঘাত দিয়ো না’।

অনেকে আবার বলছে, পরীমনি তার হাতে মেহেদী দিয়ে লেখায় আঘাত ব্যবহার করেননি। কারণ তিনি সরাসরি Hurt শব্দটি না লিখে প্রতীক ব্যবহার করেছেন। একারণে অনেকে বলতে চাচ্ছেন, পরীমনি বলেছে, ‘আমাকে ভালোবেসো না’।

কারাগার থেকে বের হয়ে আঘাত, ঘৃণা বা ভালোবাসার যে বার্তাই দিতে চান না কেন আলোচিত এই নায়িকা, এর বাইরে গিয়ে কেউ কেউ প্রশ্ন তুলেছেন, কারাগারে পরীমনি মেহেদী পেলেন কোথায়?

এবিষয়ে কারাগার কর্তৃপক্ষ বা সংশ্লিষ্ট মহল যে উত্তরই দিক না কেন সেদিকে যে উৎসুক জনতা ও ভক্তকুলের ভ্রুক্ষেপ নেই তা বোঝা যায় দীর্ঘ নাটকীয়তার পর কারাগার থেকে বের হওয়া পরীমনিকে ঘিরে তাদের জটলা দেখে।

এসময় জনতা পরীমনির গাড়ি ঘিরে ধরে সেলফি তোলায় ব্যস্ত হয়ে যায়। একসময় গাড়ির ছাদের খোলা জানালা দিয়ে বের হয়ে উপস্থিত সকলের উদ্দেশ্যে হাত নাড়েন পরীমনি। একইসাথে নিজের মোবাইল দিয়েও তিনি গাড়িতে থেকেই সবার সাথে ছবি তুলেন।

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন