দ্বীপের মাটি দিয়ে তৈরি হয় মসলা!

বৈচিত্রময় এই বিশ্বের নানান প্রান্তেই ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে হরেক রকমের নানান অদ্ভুত সুন্দর সব সৃষ্টি। বিশ্বে এমনই এক অদ্ভুত দ্বীপ আছে যার মাটি রান্নায় মসলা হিসেবে ব্যবহার করা হয়।

কৌতূহলের রাজ্যখ্যাত এই দ্বীপের অবস্থান ইরানে। এটি হরমুজ দ্বীপ নামে পরিচিত। রঙের বৈচিত্র্যের জন্য এটি ‘রেইনবো আইল্যান্ড’ নামেই বেশি পরিচিত।

হরমুজ দ্বীপের কথা এই সময়ে খুব কমই শোনা যায়। এক সময়ে অবশ্য এশিয়া ও ইউরোপের সমুদ্র বাণিজ্যের বন্দর হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ ছিল এটি।

রেইনবো আইল্যান্ড অত্যন্ত খনিজসমৃদ্ধ। যে কারণে দ্বীপটিকে ভূবিজ্ঞানীদের ডিজনিল্যান্ডও বলা হয়। ৪২ বর্গকিলোমিটার আয়তনের এই দ্বীপে ৭০ ধরনের খনিজ পদার্থ পাওয়া যায়।

কয়েক কোটি বছর আগে সমুদ্রের পানির কারণে এর মাটিতে লবণের পুরু আস্তরণ পড়ে। তার সঙ্গে আগ্নেয়গিরির লাভার খনিজের প্রতিক্রিয়ায় এর মাটিতে নানা বর্ণ দেখা যায়। দ্বীপের মাটি লোহিত রঙের হওয়ার কারণ মাটিতে মিশে থাকা হেমাটাইট নামে অতিরিক্ত লৌহ অক্সাইড বা গিল্যাক।

এই মাটি শিল্পক্ষেত্রে ব্যবহূত হয়। পাশাপাশি আবার রান্নায় মসলা হিসেবে ব্যবহার করেন স্থানীয়রা। তারা রুটির সঙ্গে মসলা হিসেবে এই মাটি ব্যবহার করে থাকেন। স্থানীয় ভাষায় ওই রুটির নাম ‘তোমশি’

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন