তাবলিগের সাথীদের প্রতি মাওলানা যুবায়েরের আহবান

ডেস্ক রিপোর্ট::
তাবলিগ জামাত বাংলাদেশের বিশিষ্ট মুরব্বী কাকরাইল মারকাজের প্রবীণ শুরা সদস্য হাফেজ মাওলানা যুবায়ের (দা.বা.)। তিনি তাবলিগের সাথীদের প্রতি দ্বন্দ্ব ও বিদ্বেষ ভুলে আলেম-ওলামার সঙ্গে দাওয়াতি কাজে মেহনত করার আহ্বান জানিয়েছেন।

তিনি গতকাল কাকরাইল মারকাজের এক বিশেষ দাওয়াতি কাজে কাফেলাসহ টেকনাফ পৌরসভাস্থ অলিয়াবাদ মারকাজ মসজিদের জোড়ে অংশগ্রহণ করেন। সেখানে তিনি তাবলিগের দাওয়াতি কাজ ও বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ বয়ান পেশ করেন।

টেকনাফের এ দাওয়াতি মজলিসে তাবলিগের সাথীদের অংশগ্রহণে অলিয়াবাদ মসজিদ কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায়। তাবলিগের সাথীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘দাওয়াত ও তাবলিগের কাজে কোনো দ্বন্দ্ব ও বিদ্বেষ পোষণ না করে আলেম-ওলামাদের নির্দেশনায় কাজ করুন।’

ad

তাবলিগের এ মুরব্বী বলেন, ‘‘দাওয়াতে তাবলিগের মেহনত এর উদ্দেশ্য হলো- অন্তরে ইলমের শওক পয়দা করা ৷ আর এ কাজের প্রচার ও প্রসারে ওলামায়ে কেরামের অবদান যথেষ্ট। অথচ আজ ওলামায়ে কেরামের সাথে আমাদের সাথীরা বিদ্বেষ পোষণ করেন ৷ সব বিদ্বেষ বাদ দিয়ে আলেম-ওলামাদের কাছ থেকে দ্বীনের ইলম জেনে জেনে সহিহ দ্বীন মোতাবেক জীবন পরিচালনা করুন।

m

ওলামায়ে কেরামের সম্মান আর তাদের সান্নিধ্য অর্জনে কাকরাঈলের বিশেষ জোড়ে ৩ চিল্লাওয়ালা সাথীদের জোড়ার (অংশগ্রহণের) আহ্বান করে মুনাজাতের মাধ্যমে টেকনাফের বিশেষ দাওয়াতি জোড় সম্পন্ন করেন।

এর আগে দীর্ঘ বয়ান করেন বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব ও মুবাল্লিগুল ইসলাম মাওলানা নজরুল ইসলাম কাসেমী, টেকনাফ আল-জামিয়ার প্রধান পরিচালক মাওলানা মুফতি কিফায়তুল্লাহ শফিক এবং সাবরাং দারুল উলুম মাদরাসার প্রধান পরিচালক মাওলানা নুর মোহাম্মদ ৷

তাবলিগের সাথীদেরকে সব দ্বন্দ্ব ও বিদ্বেষ ভুলে আলেম-ওলামাদের দিক-নির্দেশনায় দ্বীনের মেহনত করে নবিওয়ালা দাওয়াতি কাজে যুক্ত থাকার তাওফিক দান করুন। আমিন।