ad

কোরআন শরীফের ভেতর করে ইয়াবা পাচার: ৩ রোহিঙ্গা আটক

ডেস্ক রিপোর্ট ::
এবার কোরআন শরীফের ভেতরে করে অভিনব উপায়ে পাচারের সময় টেকনাফে ১৫ হাজার ৪৩২ পিচ ইয়াবাসহ ৩ রোহিঙ্গা আটক করেছে বিজিবি। ১২ মার্চ রাত ১টার দিকে টেকনাফের নাফ নদীর তীরবর্তী বরইতলী এলাকা থেকে ইয়াবাসহ তাদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হচ্ছে মিয়ানমারের মংডু সুধা পাড়া এলাকার বদি আলমের ছেলে মো. জোবায়ের (২০), বরইতলী এলাকার মৃত ইকবাল আহমদের ছেলে দীল মোহাম্মদ (১৯) ও একই এলাকার শফিউল্লাহর ছেলে মো. আনোয়ার হোসেন (১৮)।
টেকনাফস্থ বিজিবি ২ ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে.কর্ণেল মো. আছাদুদ জামান চৌধুরী জানান, টেকনাফ বিওপির হাবিলদার মো. আশরাফুল আলমের নেতৃত্বে একটি টহলদল বড়ইতলী বরাবর নাফ নদীর কিনারায় নিয়মিত টহলে ছিল। এসময় মিয়ানমারের দিক থেকে একটি নৌকা এসে ৩ জন পাচারকারী কেওড়া বনে নামিয়ে দিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়। বিজিবি সদস্যরা ৩ ব্যক্তিকে চ্যালেঞ্জ করলে তারা পালানোর চেষ্টা করে। একপর্যায়ে বিজিবি জওয়ানরা তাদেরকে আটক করতে সক্ষম হন। পরে তল্লাশীর একপর্যায়ে তাদের সাথে থাকা ব্যাগে রক্ষিত কোরআন শরীফের ভেতর অভিনব উপায়ে নিয়ে আসা ইয়াবা গুলো উদ্ধার করা হয়। ধৃত ৩ পাচারকারীকে জব্দ ইয়াবাসহ টেকনাফ থানায় সোপর্দ্য করে মাদক ও অবৈধ অনুপ্রবেশের দুইটি পৃথক মামলা রুজু করা হয়েছে। জব্দ ইয়াবার আনুমানিক মূল্য ৪৬ লাখ ২৯ হাজার টাকা বলে জানিয়েছে বিজিবি।