ad

কক্সবাজারের কুখ্যাত সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার

কক্সবাজার প্রতিনিধি::
কক্সবাজার শহরের বহু চাঞ্চল্যকর ঘটনার মুল হোতা কুখ্যাত সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার হয়েছে। সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর বিরুদ্ধে কক্সবাজার মডেল থানায় ডজনখানিক মামলা রয়েছে। কুখ্যাত সন্ত্রাসী বার্মাইয়া হোছন মাঝির ছেলে। সূত্রে জানা যায়, এ সন্ত্রাসী প্রতিনিয়ত খুন, ডাকাতি, মাদকদ্রব্য, ইয়াবা, অস্ত্রশস্ত্র, ছিনতাইসহ নানা অপরাধ কর্মকান্ড তার নিয়ন্ত্রনে পরিচালনা করতো। এছাড়া স্কুল ছাত্রীদের সবসময় ইভটিজিং করার অভিযোগও রয়েছে। সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর নিজস্ব একটি গ্রুপ রয়েছে। তার অধীনে কিছু কিশোর অপরাধী এ ধরণের জঘন্য কর্মকান্ডগুলো সংঘটিত করে। সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহ ছাড়াও আরো রয়েছে- একই এলাকার আশু আলী, সরোয়ার, হৃদয়, ওসামা বিন হোছাইন, মামুনসহ আরো অনেকেই। বর্তমানে এই কিশোর অপরাধীর সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহ ছিলেন এই কিশোর অপরাধীদের ডন এবং অপরাধ জগতের প্রতি আসক্তের মুল হোতা। কুখ্যাত সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর সহযোগী হিসেবে উল্লেখিত কিশোররা অপরাধ জগতের ডন হতে যাচ্ছে। কিশোর অপরাধীরা শিশু আইনের ফাঁক দিয়ে জামিনে বের হয়ে বিভিন্ন অপরাধে জড়িয়ে পড়ছে বলে স্থানীয়রা জানায়। কুখ্যাত সন্ত্রাসী হাবিব উল্লাহর খপ্পড়ে পড়ে বহু ছাত্রের জীবন নষ্ট হয়েছিল বলে অভিভাবকেরা জানান। অনেক পরিবারের কিশোর সন্তান মাদকাসক্ত, কেউ কেউ বনে গেছে ছিনতাইকারী, ডাকাত দলের সদস্য হিসেবে চিহ্নিত সন্ত্রাসীদের নামের তালিকায় নিজেদের নাম লেখান। কক্সবাজার মডেল সদর থানা ওসি ফরিদ উদ্দিন জানান হাবিব উল্লাহর বিরুদ্ধে বহু মামলা ছিল। কে কারা তাকে গুলি করেছে তা এখনো জানা যায় নি এবং তার পরিবার থেকে কোন অভিযোগ দিলে আমরা তদন্ত করবো।

ad