উখিয়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৮জনের সাজা 


আবদুল্লাহ আল আজিজ,উখিয়া নিউজ ডটকম :
কক্সবাজারের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন কুতুপালং বাজারে যত্রতত্রভাবে বাংলাদেশি ভূয়া আইডি কার্ড তৈরি ,ভূয়া সিম বিক্রি,ভূয়া রোহিঙ্গাদের ডাক্তারী সহ বিভিন্ন অপরাধে জড়িত থাকার অভিযোগে ৮ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড প্রদান করেছেন উখিয়ার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সহকারী কমিশনার (ভূমি) একরামুল ছিদ্দিক।

আজ রবিবার বেলা ১২ টার দিকে উখিয়াস্থ কুতুপালং বাজারে ঝটিকা অভিযান চালিয়ে ভূয়া জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি,রোহিঙ্গাদের মাঝে সীম বিক্রি,ভূয়া ডাক্তার,জাল স্ট্যাম্পসহ বিভিন্ন অপরাধে এ কারাদণ্ড প্রদান করেন তিনি।

ad

জানা গেছে,দীর্ঘদিন ধরে রোহিঙ্গা অধ্যুষিত বাজারগুলোতে বাধাহীন ভাবে তারা ভূয়া জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি,রোহিঙ্গাদের মাঝে সীম বিক্রি, ভূয়া ডাক্তার, জাল স্ট্যাম্পসহ বিভিন্ন অপরাধ মুলক কর্মকান্ড চালিয়ে আসছিল।
দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন ছাইদুল আমিন, পিতা- কাদের হোসেন, ছালামত উল্লাহ, পিতা- মোস্তাক আহমেদ, মো: সেলিম, পিতা- আব্দুর রহমান, মিজানুর রহমান, পিতা- কবির আহমদ,  মুহাম্মদ শাকিল, পিতা- কামালউদ্দিন, মো: ইসমাইল, পিতা- ছৈয়দ নূর, মিজানুর রহমান, পিতা- নুরুল হক সহ ৭  জনকে এক মাস করে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়। বাকী মো: নূর, পিতা- আলি আকবর কে ১৫ দিন কারাদণ্ড দেয়া হয়।
এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে উখিয়া সহকারী কমিশনার ভূমি একরামুল ছিদ্দিক জানান,  ১৮৬০ এর দন্ডবিধি ১৮৮ ও ২৯৪ ধারায় তাদেরকে সাজা দেওয়া হয়েছে।

তিনি আরও বলেন,অপরাধীদের কোন প্রকার ছাড় দেওয়া হবেনা এবং আইনের আওতায় এনে এইসব অপরাধীদের শাস্তি প্রদান করা হবে এবং জনস্বার্থে এই ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানান।