ইয়াবাসহ এসআই গ্রেফতার

নিউজ ডেস্ক::
বিপুল পরিমাণ মাদবদ্রব্যসহ পুলিশের এক এসআইকে গ্রেফতার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। বুধবার বিকেলে মনোহরদী উপজেলার মাষ্টার বাড়ি এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত পুলিশ সদস্য সৈয়দ জহুরুল হক বাবলু মনোহরদী উপজেলা চন্দনবাড়ীর গ্রামের আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে। আটকের সময় তার কাছ থেকে ১৫০পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ২৩ বোতল ফেন্সিডিল, নগদ ৪৫ হাজার টাকা ও একটি মোটর সাইকেলে উদ্ধার করা হয়।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, মাদকের একটি চালান নরসিংদীর মনোহরদীর উপজেলার মাষ্টার বাড়ি বাজার এলাকা থেকে চরমান্দালিয়া গ্রামের দিকে যাচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিত্বে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের উপ-পরিদর্শক খোকন চন্দ্র সরকারের নেতৃত্বে গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল মাষ্টার বাড়ি বাজার এলাকায় অভিযান চালায়।

বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে মোটর সাইকেলযোগে ২ আরোহী যাচ্ছিল। তাদের গাড়ী থামানোর সংকেত দেয় পুলিশ। তারা পুলিশের নির্দেশ অমান্য করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে গোয়েন্দা সদস্যরা ধাওয়া করে। পরে পুলিশ চরমান্দালিয়া সাকিনে ব্রীজের উপরে ব্যারিকেট সৃষ্টি করে তাদের আটক করে। এসময় মোটর সাইকেল থেকে একজন পালিয়ে যায় আর সৈদয় জহুরুল হক ভূইয়া বাবলুকে আটক করা হয়।

আটকের পর তাকে তল্লাশী চালিয়ে প্যান্টের ডান পকেট থেকে ১৫০পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, বাম পকেট থেকে নগদ ৪৫ হাজার টাকা এবং ব্যাগ থেকে ২৩ বোতল ফেন্সিডিল জব্দ করা হয়।

তল্লাশীর সময় বাবলু নিজেকে পুলিশ সদস্য পরিচয় দিয়ে ছেড়ে দেয়ার দাবী জানায়। পরে গোয়েন্দা পুলিশ সদস্যরা তাকে গ্রেফতার করে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেন।

শনিবার তাকে নরসিংদীর চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট চন্দন কুমার নাথ এর আদালতে তোলা হলে আদালত তাকে কারাগারে প্রেরণ করেন।

গোয়েন্দা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এস আই) খোকন চন্দ্র সরকার সাংবাদিকদের বলেন, গ্রেফতারকৃত বাবলু দীর্ঘদিন পেশার অন্তরালে থেকে মাদক ব্যাবসার সঙ্গে জড়িত ছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে সে নিজেকে কিশোরগঞ্জ জেলার কটিয়াদীর থানা এসআই বলে দাবী করে।